আ’লীগ নেতাকে হেলমেট ছাড়া পেট্রোল না দেওয়ায় তেল পাম্প বন্ধ!

হেলমেট না থাকলে মোটরসাইকেলে তেল বিক্রি না করতে কঠোর নির্দেশ দিয়েছে পুলিশ। কিন্তু আজ মোটরসাইকেল আরোহী ছিলেন একজন আওয়ামী লীগ নেতা। হেলমেট না থাকায় তার কাছে তেল বিক্রিতে রাজি হয়নি পাম্পের বিক্রয়কর্মী। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে ওই নেতা পাম্পের তেল বিক্রি বন্ধ করে দিয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে।

বুধবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে রাজশাহীর পুঠিয়া ফিলিং স্টেশনে এ ঘটনা ঘটে। তেল পাম্প ম্যানেজার অলক কুমার সরকার বলেন, বেলা সাড়ে ১১টার দিকে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পালোপাড়া হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক আব্দুল মালেক মোটরসাইকেলে তেল নিতে আসেন। সে সময় তার কাছে কোনো হেলমেট ছিল না। তাই পাম্পের একজন বিক্রয়কর্মী তেল দিতে অপারগতা প্রকাশ করলে তিনি ক্ষিপ্ত হয়ে চলে যান।

তিনি বলেন, কিছুক্ষণ পর আওয়ামী লীগ নেতা আব্দুল মালেক আবার এসে নিজে দাঁড়িয়ে থেকে এখানকার কর্মচারীদের দিয়ে পাম্পের সামনে দড়ি বেঁধে অবরোধ করে চলে যান। যাওয়ার আগে তিনি আমাদের হুমকি দিয়ে যান কারো কাছে তেল বিক্রি করলে পাম্প জ্বালিয়ে দেয়া হবে। এরপর থেকে পাম্পে তেল বিক্রি বন্ধ রাখা হয়েছে। বিষয়টি পাম্প মালিক, থানা ও উপজেলা প্রশাসনকে অবহিত করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি পুলিশ প্রশাসন হেলমেটবিহীন কোনো মোটরসাইকেলে তেল দেয়ায় নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। এ বিষয়ে পাম্পের সামনে একটি ব্যানারও ঝুলানো আছে।

প্রত্যক্ষদর্শী আবুল হোসেন ও আরিফুল হক বলেন, বেলা প্রায় ১১টার দিকে হেলমেটবিহীন তেল না দেয়াকে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবদুল মালেকের সঙ্গে পাম্প কর্মচারীদের কথা-কাটাকাটি হয়। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে তেল বিক্রি বন্ধ রাখা হয়েছে। কিছুক্ষণ পরপর ওই নেতার লোকজন পাম্পের সামনে থেকে দেখে যাচ্ছে তেল বিক্রি হচ্ছে কিনা। হঠাৎ করে পাম্পে তেল বিক্রি বন্ধ থাকায় শত শত যানবাহন চালকরা তেল নিতে এসে হয়রানির শিকার হচ্ছে।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*